ঢাকা, বৃহস্পতিবার, এপ্রিল ১৫ ২০২১,

এখন সময়: ০২:৪১ মিঃ

সেক্টর কমান্ডার আবু ওসমান চৌধুরী আর নেই

ডেস্ক নিউজ : | ০৫:৪৭ মিঃ, সেপ্টেম্বর ৫, ২০২০



স্বাধীনতা পদক প্রাপ্ত মুক্তিযুদ্ধের সেক্টর কমান্ডার লেফটেন্যান্ট কর্নেল (অব.) আবু ওসমান চৌধুরী মারা গেছেন। মুক্তিযুদ্ধকালীন ৮ নম্বর সেক্টরের কমান্ডার আবু ওসমান চৌধুরীর বয়স হয়েছিল ৮৪ বছর।

আবু ওসমান চৌধুরীর মৃত্যুতে গভীর শোক ও দুঃখ প্রকাশ করেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। পাশাপাশি মরহুমের শোক সন্তপ্ত পরিবারের প্রতি প্রধানমন্ত্রীর গভীর সমবেদনা জানান।

শনিবার (৫ সেপ্টেম্বর) সকালে রাজধানীর সম্মিলিত সামরিক হাসপাতালে (সিএমএইচ) চিকিৎসাধীন অবস্থায় আবু ওসমান চৌধুরী মারা যান। তার ব্যক্তিগত সহকারী আবুল বাশার গণমাধ্যমে এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

তিনি জানান, আবু ওসমান চৌধুরী দীর্ঘদিন ধরেই বার্ধক্যজনিত নানা জটিলতায় ভুগছিলেন। স্মৃতিশক্তিও ক্রমে লোপ পাচ্ছিল তার। এক সপ্তাহ আগে অসুস্থ অবস্থায় তাকে সিএমএইচে ভর্তি করা হয়। সেখানে পরীক্ষার পর তার নভেল করোনাভাইরাস সংক্রমণ নিশ্চিত হওয়া গিয়েছিল। এর মধ্যে তার ব্রেন টিউমারও ধরা পড়ে।

১৯৩৬ সালের ১ জানুয়ারি চাঁদপুরের ফরিদগঞ্জ উপজেলার মদনেরগাঁও গ্রামে জন্ম হয় আবু ওসমান চৌধুরীর। কুমিল্লা ভিক্টোরিয়া কলেজ থেকে বিএ পাস করার পর ১৯৫৮ সালে পাকিস্তান সেনাবাহিনীতে কমিশন পান। ১৯৬৮ সালের এপ্রিল মাসে তিনি পদোন্নতি পেয়ে মেজর হন।

মুক্তিযুদ্ধ চলাকালে লেফটেন্যান্ট কর্নেল (অব.)আবু ওসমান চৌধুরী পাকিস্তান সেনাবাহিনীর একজন মেজর হিসেবে কুষ্টিয়ায় কর্মরত ছিলেন।

১৯৭১ সালের ৬ মার্চ আবু ওসমান চৌধুরী পদ্মা মেঘনার ওপারে কুষ্টিয়া থেকে বরিশাল জেলা পর্যন্ত বিস্তীর্ণ এলাকাকে দক্ষিণ-পশ্চিম রণাঙ্গণ নামকরণ করে সেই রণাঙ্গণের অধিনায়কত্ব গ্রহণ করেন।

অপারেশন সার্চলাইট-এর সংবাদ পেয়ে ২৬ মার্চ সকালে বেলা ১১টায় তিনি চুয়াডাঙার ঘাঁটিতে পৌঁছে পাকিস্তান সেনাবাহিনীর বিরুদ্ধে বিদ্রোহ ঘোষণা করেন এবং মুক্তিযুদ্ধে যোগ দেন।

পরে ১৯৭১ সালের ১০ এপ্রিল বাংলাদেশ সরকার তাকে দক্ষিণ পশ্চিমাংশের আঞ্চলিক কমান্ডার হিসেবে নিযুক্ত করে।

মে মাসের শেষ দিকে মুক্তিযুদ্ধের প্রধান সেনাপতি এম এ জি ওসমানী দক্ষিণ-পশ্চিম রণাঙ্গনকে দুই ভাগ করে ৮ নম্বর ও ৯ নম্বর সেক্টরদ্বয় গঠন করেন। এই সময় ৮ নম্বর সেক্টরের দায়িত্বে আবু ওসমানকে নিয়োগ করা হয়।

প্রাথমিকভাবে আট নম্বর সেক্টরের অপারেশন এলাকা ছিল কুষ্টিয়া, যশোর, খুলনা, বরিশাল, ফরিদপুর ও পটুয়াখালী জেলা। মে মাসের শেষে অপারেশন এলাকা সংকুচিত করে কুষ্টিয়া ও যশোর, খুলনা জেলা সদর, সাতক্ষীরা মহকুমা এবং ফরিদপুরের উত্তরাংশ নিয়ে এই এলাকা পুনর্গঠন করা হয়। এই সেক্টরের প্রধান ছিলেন আবু ওসমান চৌধুরী এবং পরে মেজর এম এ মঞ্জুর।

দেশ স্বাধীন হওয়ার পর আবু ওসমান চৌধুরীকে লেফটেনেন্ট কর্নেল হিসেবে পদোন্নতি দেওয়া হয়। বঙ্গবন্ধু তাকে আর্মি সার্ভিস কোরের (এএসসি) পরিচালকের দায়িত্ব দেন।

বঙ্গবন্ধু হত্যাকাণ্ডের পর ১৯৭৫ সালের ৭ নভেম্বর সেনা অভ্যুত্থানের সময় একদল সেনাসদস্য আবু ওসমান চৌধুরীকে হত্যার জন্য তার গুলশানের বাড়িতে হামলা করে। বাড়িতে না থাকায় তিনি সেদিন প্রাণে বেঁচে গেলেও নিহত হন তার স্ত্রী নাজিয়া খানম।

পরবর্তী সময়ে যুদ্ধাপরাধীদের বিচারের দাবিতে একাত্তরের ঘাতক-দালাল নির্মূল কমিটি গঠনে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখেন আবু ওসমান চৌধুরী। তিনি সেক্টর কমান্ডারস ফোরামের জ্যেষ্ঠ ভাইস চেয়ারম্যানের পদেও ছিলেন।

১৯৯৬ সালে আওয়ামী লীগ সরকার ক্ষমতায় এলে আবু ওসমান চৌধুরীকে বিজেএমসির চেয়ারম্যান করা হয়। পরে তাকে চাঁদপুর জেলা পরিষদের প্রশাসক হিসেবে দায়িত্ব দেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

স্বাধীনতাযুদ্ধে বীরত্বপূর্ণ অবদানের জন্য ২০১৪ সালে আবু ওসমান চৌধুরীকে স্বাধীনতা পদকে ভূষিত করে সরকার।

মন্তব্যঃ সংবাদটি পঠিত হয়েছেঃ 280 বার।





এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

০৩:০৮ মিঃ, মে ২৬, ২০২০

করোনায় নির্বাচন সংকটে ইসি

০১:৪৪ মিঃ, সেপ্টেম্বর ১, ২০২০

বীর উত্তম সিআর দত্তকে শেষ বিদায়

০১:৪৯ মিঃ, আগস্ট ২৭, ২০১৭

৫৭ ধারায় সংশ্লিষ্টদের সম্পৃক্ততা

সর্বশেষ আপডেট

বৈশাখ ও রমজানের শুভেচ্ছা জানালেন জো বাইডেন রমজান উপলক্ষে জাস্টিন ট্রুডোর শুভেচ্ছা ইফতার এবং সাহরীতে পানি সরবরাহ নিশ্চিত করতে হবে: তাজুল সাবেক মন্ত্রী আবদুল মতিন খসরু আর নেই আল্লামা শফী হত্যার দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দাবি করলেন তথ্যমন্ত্রী করোনার বিরুদ্ধে ঘরে ঘরে সচেতনতার দুর্গ গড়ে তুলুন : কাদের বাংলাদেশ নিয়ে অমিত শাহ’র জ্ঞান সীমিত : ড. মোমেন শঙ্কিত হওয়ার কারণ নেই সরকার পাশে থাকবে : প্রধানমন্ত্রী করোনা নিয়ে রাজনীতি না করে গঠনমূলক পরামর্শ দিন : কাদের হেফাজতের তাণ্ডব নিয়ে বিএনপি একটি শব্দও উচ্চারণ করেনি : কাদের আজ সন্ধ্যায় জাতির উদ্দেশে ভাষণ দেবেন প্রধানমন্ত্রী বিধিনিষেধ মানাতে প্রশাসনকে কার্যকর পদক্ষেপ নেয়ার নির্দেশ শান্তিরক্ষা মিশনে নতুন সংকট মোকাবিলা প্রস্তুতি সময়ের দাবি: প্রধানমন্ত্রী অনৈতিক কর্মকাণ্ডে জড়িতদের হাতে ইসলাম নিরাপদ নয় পণ্যবাহী পরিবহন যাতে কোনোভাবেই যাত্রীবাহী পরিবহনে রূপ না নেয় : কাদের প্রিন্স ফিলিপের শেষকৃত্যে থাকছেন না ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী নকল, ভেজাল ও নিম্নমানের পণ্য সরবরাহরোধে সমন্বিত কঠোর ব্যবস্থা : শিল্পমন্ত্রী ১২-১৩ এপ্রিল দূরপাল্লার পরিবহনও বন্ধ ঘোষণা লকডাউনে বৃহত্তর স্বার্থে ঘরে থাকার আহ্বান সেতুমন্ত্রীর মিতা হকের মৃত্যুতে রাষ্ট্রপতির শোক