ভারতের মতো পরিস্থিতিতে পড়তে চাই না : স্বাস্থ্যমন্ত্রী

নিজস্ব প্রতিবেদক: | ০৬:১২ মিঃ, মে ২, ২০২১



আমরা ভারতের মতো পরিস্থিতিতে পড়তে চাই না জানিয়ে স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেক বলেছেন, টানা লকডাউনের মধ্যে দেশে করোনাভাইরাসের শনাক্তের হার কিছুটা কমে আসলেও আত্মতুষ্টিতে ভোগার কোনো সুযোগ নেই ।

২ মে রবিবার স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের সুবর্ণ জয়ন্তী উপলক্ষে এক ভার্চুয়াল আলোচনা সভায় অংশ নিয়ে তিনি এসব কথা করেন।

জাহিল মালেক বলেন, আমরা আবার দ্বিতীয় ঢেউয়ে কেন পড়লাম, সেটা আমাদের জানা থাকতে হবে। আমরা স্বাস্থ্যবিধি মানিনি, বেপরোয়াভাবে বাইরে ঘুরে বেড়িয়েছি। বিয়ে-শাদী করেছি, পিকনিকে গিয়েছি, সব মিলিয়ে দ্বিতীয় ঢেউটা এলো। পৃথিবীর অন্যান্য দেশেও এই দ্বিতীয় ঢেউ এসেছে।

সাস্থামন্ত্রী বলেন, ভারতের মতো পরিস্থিতিতে আমরা পড়তে চাই না। আমাদের এখনই সতর্ক হতে হবে। মাস্ক, সেনিটাইজারসহ স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলতে হবে।

স্বাস্থ্যমন্ত্রী আরও বলেন, আমাদের ডাক্তার, নার্স, স্বাস্থ্যকর্মীরা যেভাবে দিনরাত পরিশ্রম করছে, তাদের প্রতি আমাদের শ্রদ্ধা সবসময় আছে। আমরা একসঙ্গে কাজ করছি, আমরাও এই সংগ্রামের একজন সদস্য। আমরা আপনাদের সকলের পাশে আছি।

তিনি বলেন, প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশনায় আমাদের জন্য টিকার ব্যবস্থা করা হয়েছিল, যেহেতু ভারত থেকে আসছে না। তাই আমরা চীনের সঙ্গে আলোচনা করে ব্যবস্থা করছি। তারা আমাদেরকে শুরুতে ৫ লাখ টিকা দেবে। তাদের টিকা কিছুদিনের মধ্যেই দেশে চলে আসবে। আরও টিকার ব্যবস্থা রাশিয়া থেকে হচ্ছে। তাদের সঙ্গে আলোচনা অনেক দূর এগিয়েছে। আশা করি আমাদের টিকা কর্মসূচি চলমান থাকবে।

স্বাস্থ্যমন্ত্রী বলেন, স্বাস্থ্যসেবা বিরাট একটি বিভাগ, এটি অনেকেই বুঝতে পারে না। আমরাও বুঝতে পারিনি। পৃথিবীর কোনো দেশই স্বাস্থ্যসেবাকে গুরুত্ব দেয়নি। এতদিন তারা মানুষ হত্যায় বোম, মারণাস্ত্র তৈরি করায় সব বিনিয়োগ করেছে। মানুষকে চিকিৎসা দেওয়ার জন্য সেরকম বিনিয়োগ তারা করেনি। এটার প্রমাণ পাওয়া গেল করোনার কারণে ভাইরাসের সময়ে। ভাইরাসটি পুরো পৃথিবীকে নাড়িয়ে দিয়েছে।

তিনি বলেন, আমরা আপনাদের সবাইকে নিয়েই করোনা মোকাবিলা করছি। শুরুতে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে করোনা মোকাবিলায় আমরা সফলতা অর্জন করতে সক্ষম হয়েছিলাম। আমরা প্রথমে ভালোভাবে মোকাবিলা করেছি। যা যা প্রয়োজন ছিল, হাসপাতাল তৈরি করা থেকে শুরু করে বেড সংখ্যা বাড়ানো, সেন্ট্রাল অক্সিজেন লাইন তৈরি করা, হাই ফ্লো নাজাল ক্যানোলা স্থাপন করাসহ সবকিছুই আমরা করেছিলাম। কিন্তু আমাদের বেপরোয়া চলাফেরায় আবার সংক্রমণ বেড়ে গিয়েছে

মন্তব্যঃ সংবাদটি পঠিত হয়েছেঃ 24 বার।




সর্বশেষ আপডেট

তুরস্ক চুপ করে থাকবে না : তায়িপ এরদোয়ান যুদ্ধাহত মুক্তিযোদ্ধাদের ফলমূল ও মিষ্টান্ন পাঠালেন প্রধানমন্ত্রী করোনা প্রতিরোধে স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলুন : আমু ফিলিস্তিনি নয় ইসরায়েলিদের জন্য চিন্তিত বাইডেন স্বাস্থ্যবিধি মেনে ঈদ উদযাপন করতে রাষ্ট্রপতির আহ্বান স্বাভাবিক চলাচলের উপর বিধিনিষেধ আরোপ করতে বাধ্য হয়েছি : প্রধানমন্ত্রী বাংলাদেশের জন্য আশীর্বাদ শেখ হাসিনা : শামীম খালেদার জন্মদিন নিয়ে বিভ্রান্তির জবাব বিএনপির পক্ষ থেকে এখনো পাইনি: কাদের ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি যুক্তরাজ্য সফর বাতিল করলেন আর্থিক সংকটে পড়া নন এমপিও শিক্ষক-কর্মচারীদের প্রধানমন্ত্রীর অনুদান বিটিভি এবার দেখা যাবে মোবাইল অ্যাপেই : তথ্যমন্ত্রী খালেদার মুক্তি শেখ হাসিনার মানবিকতার পরিচয় : কাদের আস্থা ভোটে হেরে ক্ষমতা হারালেন নেপালের প্রধানমন্ত্রী মমতা যে ৮ মন্ত্রণালয় হাতে রাখলেন ভারতের প্রতি সহমর্মিতা জানিয়ে মোদিকে প্রধানমন্ত্রীর চিঠি আপনজনদের জীবনকে হুমকির মুখে ঠেলে দেবেন না : প্রধানমন্ত্রী খালেদার অসুস্থতা নিয়ে রাজনীতি করে বিএনপি পরিবেশ নষ্ট করতে চায় : হানিফ অবশেষে খালেদা জিয়ার জন্মদিনের সঠিক তথ‌্য প্রকাশিত : কাদের সাদিক খান আবারও লন্ডনের মেয়র নির্বাচিত হলেন খালেদা জিয়ার বিদেশে যাওয়ার সুযোগ আইনে নেই: আইনমন্ত্রী